নরসিংদীর খবরমনোহরদী

নরসিংদীর মনোহরদীতে ছাত্রলীগের হামলায় ২ সাংবাদিক ও স্বেচ্ছাসেবক দলের ১৫ জন নেতাকর্মী আহত

The Daily Narsingdir Baniবাণী রিপোর্ট : নরসিংদীর মনোহরদীতে ছাত্রলীগের হামলায় ২ সাংবাদিক ও স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতাকর্মীসহ ১৫ জন আহত হয়েছে।

পারফিউম ফ্যাক্টরি The Daily Narsingdir Bani

বুধবার দুপুরে মনোহরদী কাশবন রেস্টুরেন্টে এ হামলার ঘটনা ঘটে। স্বেচ্ছাসেবক দলের উদ্যোগে করোনা রোগীদের চিকিৎসাসেবায় হেল্প সেন্টার উদ্বোধন অনুষ্ঠানে ছাত্রলীগ হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

The Daily Narsingdir Bani

স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদের ভুইয়া জুয়েলের সার্বিক সহযোগিতায় চিকিৎসাসেবায় এ হেল্প সেন্টার স্থাপনের উদ্যোগ নেয় নরসিংদী জেলা স্বেচ্ছাসেবক দল।

হাতি মার্কা সাবান হাতি মার্কা সাবান

স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদের ভুইয়া জুয়েল জানিয়েছেন, করোনার সময় মাক্স, হ্যান্ড স্যানিটাইজার প্রদানসহ করোনা রোগীদের চিকিৎসায় হেল্প সেন্টার উদ্বোধন অনুষ্ঠান চলাকালে হঠাৎ ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা লাঠিসোটা নিয়ে হামলা চালায়।

এতে নরসিংদী স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি ভিপি নাসির, সাংবাদিক ও স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতাকর্মীসহ ১৫ জন আহত হয়েছে। এ সময় জেলা স্বেচ্ছাসেবক দলের সাধারণ সম্পাদক শাহারিয়ার সামস্ কেনেডির গাড়ি ভাঙচুর করা হয়। এ সময় পেশাগত দায়িত্ব পালনকালে চ্যানেল আই এর জেলা প্রতিনিধি সুমন রায় ও যমুনা টিভির ক্যামেরা পারসন ইসমাইলকে পিটিয়ে আহত করে তাদের ক্যামেরা ভাংচুর করে তা ছিনিয়ে নেয় হামলাকারীরা।

আব্দুল কাদের ভুইয়া জুয়েল আরও বলেন, করোনা রোগীদের সহায়তায় মানবিক কাজ করতেও বাধা দিচ্ছে এই সরকার। আমার হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা এবং দোষীদের বিচার চাই।

এদিকে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান এ হামলার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন।

কেন্দ্রীয় ভারপ্রাপ্ত সভাপতি বলেন, আজ মনোহরদীর কাশবন পার্টি সেন্টারে স্বেচ্ছাসেবক দলের অনুষ্ঠানে সন্ত্রাসীদের হামলা নিঃসন্দেহে পূর্ব-পরিকল্পিত। করোনা মহামারির ভয়াবহ সংকটকালে সরকার গণভিত্তি হারিয়ে ফেলেছে, তাই তারা ফ্যাসিবাদী কায়দায় ক্ষমতায় টিকে থাকতে দলীয় সশস্ত্র ক্যাডারদের লেলিয়ে দিয়েছে।

কেন্দ্রীয় ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এই কাপুরুষোচিত হামলার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে অবিলম্বে দোষীদের গ্রেপ্তার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জোর দাবি জানান। এ ছাড়া সন্ত্রাসী হামলায় গুরুতর আহত নেতাকর্মীদের আশু সুস্থতা কামনা করেন।

মনোহরদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনিচুর রহমান জানান, স্বেচ্ছাসেবক দলের আয়োজন সম্পর্কে পুলিশ অবগত ছিল না। এ ঘটনায় এখনো কোনো অভিযোগ পাইনি। ঘটনা সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Back to top button