নরসিংদীর খবর

‘চৌরা’ জীবনে নতুন সম্ভাবনার দ্বার!

সরকার মোখলেছুর রহমান, যুগ্ম সচিব (উন্নয়ন),

The Daily Narsingdir Bani

পারফিউম ফ্যাক্টরি The Daily Narsingdir Bani

গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক থেকে যুগ্মসচিব হিসেবে পদোন্নতির পর কর্তৃপক্ষ ফোনে আমাকে জিজ্ঞেস করেছিলেন, তোমাকে কোথায় পোস্টিং দেবো? ইআরডি (অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ) নাকি স্থানীয় সরকার বিভাগে? কর্তৃপক্ষকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা আমাকে পছন্দ করার এই সু্যোগ দেয়ার জন্য। মজার ব্যাপার হলো, আমার নিজের পছন্দের শীর্ষেও ছিল এই দুই বিভাগ (মন্ত্রণালয়)। আমাকে নিয়ে কর্তৃপক্ষের চিন্তাভাবনা আর আমার নিজের পছন্দ মিলে যাওয়া আসলেই কাকতালীয়! বিষয়টি নিয়ে সহধর্মিণী Tanzia Salma (ফরিদপুরের তৎকালীন জেলা প্রশাসক, তিনিও তখন পদোন্নতি-পরবর্তী পদায়নের অপেক্ষায়)-র সাথে আলাপ করলাম। সে বললো, দুটোইতো ভালো এবং তোমার পছন্দেরও। তবে তোমাদের গ্রামের বাড়ি বা এলাকার রাস্তাঘাটের যা অবস্থা; স্থানীয় সরকার বিভাগে গেলে এলজিইডির মাধ্যমে যদি কিছু রাস্তার উন্নয়ন করতে পারো!

আমাদের এলাকার রাস্তাঘাটের করুণ দশা নিয়ে অনেক কিছু বলা যায়, একটা বই লিখে ফেলা যায়। বিস্তারিত আর বলবো না। শুধু এটাই বলি, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে এলজিইডি সারাদেশে লাখ লাখ কিলোমিটার রাস্তা তৈরি করে গ্রামীণ সড়ক যোগাযোগ নেটওয়ার্কে নীরব বিপ্লব করেছে মর্মে দাবী করে। এ দাবী মিথ্যেও নয়। কিন্তু এটাও সত্য যে, রাজধানী ঢাকার ৭৫ কিলোমিটার ব্যাসার্ধের মধ্যে অবস্থিত হয়েও আমার বাড়ির পার্শ্ববর্তী দুইটি ইউনিয়নে এক ইঞ্চি পাকা রাস্তা নেই। নরসিংদী জেলার রায়পুরা উপজেলার চর এলাকার ৬টি ইউনিয়নে একটিমাত্র পাকা রাস্তা যা তিনটি ইউনিয়ন ছুঁয়ে গিয়েছে। এ রাস্তাটাও অনেক সাধনার পর আমাদের মাননীয় সংসদ সদস্য আমার শ্রদ্ধাভাজন মুরুব্বী রাজিউদ্দিন আহমেদ রাজু চাচা মন্ত্রী থাকাকালে তাঁর আন্তরিক প্রচেষ্টায় নির্মিত হয়েছিল।
এমন প্রেক্ষাপটে স্থানীয় সরকার বিভাগে পদায়ন হলো। প্রথম দেখতাম ইউনিয়ন পরিষদ। তখন এলজিইডির ইঞ্জিনিয়ারদের একটা টিম নিয়ে চিন ও দক্ষিন কোরিয়া গিয়েছিলাম। ঐ সফরে বেশ কয়েকজন সিনিয়র ইঞ্জিনিয়ারের সাথে পরিচিত হই, ভাতৃত্বের বন্ধনে আবদ্ধ হই। সম্পর্ক এতটাই গভীর হয় যে, বিদেশ থেকে ফিরে সপ্তাহ দুয়েকের মধ্যে তাঁরা আমার গ্রামের বাড়িতে বেড়াতে যান। সত্যি বলতে কী, রথ দেখা এবং কলা বেচা- দুটোই আমার উদ্দেশ্য ছিল। আতিথেয়তার পাশাপাশি আমাদের এলাকার রাস্তাঘাটের করুণ অবস্থাটাও ঐ সুযোগে দেখিয়ে দেই। বিধাতার কী খেলা! কয়েকমাসের মধ্যেই আমার পদায়ন হয় যুগ্মসচিব (উন্নয়ন) হিসেবে। প্রত্যন্ত পশ্চাৎপদ আমার জন্মস্থানের জন্য কিছু করার সুযোগ এলো এভাবেই। না, এটা কোনো স্বজনপ্রীতি নয়; আঞ্চলিকতা নয়; এটা বরং এসডিজি, পঞ্চবার্ষিক পরিকল্পনা, ভিশন ২০৪১- ইত্যাদির মূল চেতনা ‘কেউ পিছিয়ে থাকবে না’ (leaving no one behind)- দর্শনকে ধারণ করে সম্পদের সুষম বন্টনের মাধ্যমে আঞ্চলিক বৈষম্য-বঞ্চনা দূর করে অন্তর্ভুক্তিমূলক (inclusive) উন্নয়নের চেষ্টা মাত্র।
The Daily Narsingdir Bani

The Daily Narsingdir Bani

তারপর অব্যাহতভাবে মাননীয় মন্ত্রী মহোদয়, শ্রদ্ধেয় সিনিয়র সচিব স্যার, এলজিইডির প্রধান প্রকৌশলী মহোদয়, উইং চিফ Mesbah Uddin স্যারকে অনুরোধ করে গিয়েছি। অন্যান্য প্রকৌশলীদের সাথেও নিয়মিত যোগাযোগ ছিল। সরকারি কাজ, বিভিন্ন প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে অতিক্রম করে বলে একটু সময়। তারপরও কিছু দৃশ্যমান হতে শুরু করেছে।

আজ পার্শ্ববর্তী চরমধুয়া ইউনিয়নের প্রথম পাকা রাস্তাটির অনুমোদনের চিঠি পেলাম (সংযুক্ত)। অর্থনীতির ছাত্র হিসেবে জানি, একটা রাস্তা শুধুমাত্র আরামে যাতায়াতের বিষয় নয়। এর ফলে পিছিয়ে পড়া চরমধুয়া ইউনিয়নের হাজারো মানুষের জীবনের সম্ভাবনার এক নতুন দ্বার উন্মোচিত হবে। অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডে প্রাণচাঞ্চল্য আসবে, শিক্ষা-স্বাস্থ্য, ব্যবসা-বাণিজ্য সকল ক্ষেত্রেই এগিয়ে যাবে মানুষ। বলতে গেলে, এক নতুন ইতিহাস সৃষ্টি হতে যাচ্ছে আমাদের ‘চৌরা’ জীবনে!
অবহেলিত এলাকার সন্তান হিসেবে আমি মাননীয় মন্ত্রী মহোদয়, শ্রদ্ধেয় সিনিয়র সচিব স্যার, সম্মানিত চিফ ইঞ্জিনিয়ার মহোদয়, উউন্নয়ন অনুবিভাগ প্রধান অতিরিক্ত সচিব মেজবাহ স্যার, প্রকল্প পরিচালক, নির্বাহী প্রকৌশলী, উপজেলা প্রকৌশলীসহ সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জানাচ্ছি। পরম করুণাময় তাঁদের সকলের মঙ্গল করুন।
আমি নগণ্য মানুষ, আমার স্বপ্নও নগণ্য। স্বপ্ন দেখি স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ে থাকাকালে রায়পুরার পশ্চাৎপদ চর এলাকার ইউনিয়নগুলোর রাস্তা-ঘাটসহ ভৌত অবকাঠামোর উউন্নয়ন করে ঐ এলাকার মানুষের জীবনের সার্বিক উন্নয়নের পথ সুগম করার। আমার সমাজসেবক বাবাকে বলতে গেলে দেখিইনি। শুনেছি পিছিয়ে পড়া চর এলাকার উন্নয়নে তিনি ছিলেন নিবেদিতপ্রাণ। তাই কাজগুলো করতে পারলে আশা করি আমার বাবা অন্য ভূবনে থেকেও অপার শান্তি লাভ করবেন।
(সরকার মোখলেছুর রহমান, যুগ্ম সচিব (উন্নয়ন), এলজিআরডি, মন্ত্রণালয়, মহোদয়ের ফেসবুক পেজ থেকে)

হাতি মার্কা সাবান হাতি মার্কা সাবান

Back to top button