নরসিংদীর খবররায়পুরা

নরসিংদীর রায়পুরায় ইভটিজিং এর প্রতিবাদ করায় ইউপি মেম্বার ও তার ভাতিজাকে কুপিয়ে জখম করেছে দুর্বৃত্তরা

The Daily Narsingdir Bani

মোঃ আকিব রাসেলঃনরসিংদীর রায়পুরায় ইভটিজিং এর প্রতিবাদ করায় ৪ বারের ইউপি মেম্বার ও তার ভাতিজাকে কুপিয়ে টেট্রাবিদ্ধ করে রক্তাক্ত জখম করেছে দুর্বৃত্তরা।

সোমবার (৩০ নভেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে রায়পুরা উপজেলার আমিরগঞ্জ ইউনিয়নের নলবাটা গ্রামে এই ঘটনা ঘটে।এ ব্যাপারে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবার ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রায়পুরা উপজেলার আমিরগঞ্জ ইউনিয়নের ৪ বারের নির্বাচিত মেম্বার গুলজার আহমেদ ও একই এলাকার রফিকুল ইসলামের মধ্যে অনেকদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল, এরই জের ধরে গুলজার মেম্বার মিথ্যা মামলায় জেল থেকে ছাড়া পেয়ে রবিবার রাতে বাড়িতে আসলে প্রতিপক্ষের লোকজন রাতে ককটেল মেরে এলাকায় আতংক সৃষ্টি করে।

পুলিশ এ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল আসলে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। সোমবার সকালে মেম্বার এর ভাতিজি ও ভাতিজা প্রাইভেট থেকে আসার পথে ঐ এলাকার প্রতিপক্ষের কয়েকজন বখাটেরা ইভটিজিং করে।

এ ঘটনার প্রতিবাদ করতে গেলে গুলজার মেম্বার ও তার ভাতিজা সহ ৭ জনকে অতর্কিতভাবে হামলা চালিয়ে রক্তাক্ত জখম করেন একই এলাকার প্রতিপক্ষ রবি মিয়া, দেলোয়ার হোসেন, সুলতান, সুজন, রবির দুই ছেলে মৃদুল ও জাহিদুল সহ আরো কয়েকজন। রায়পুরা থানার পুলিশ এ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনেন।এ ঘটনার পর থেকে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

The Daily Narsingdir Bani

পরে রায়পুরা থানার পুলিশ আহতদেরকে রক্তাক্ত অবস্থায় গুলজার মেম্বারসহ ৩ জনকে মুমুর্ষ অবস্থায় প্রথমে নরসিংদী সদর হাসপাতালে প্রেরন করেন সেখানে তাদের শারিরীক অবস্থার অবনতি ঘটলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাদেরকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন।
আমিরগঞ্জ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ রিয়াজ উদ্দিন ও এসআই মোকাদ্দম হোসেন জানান, রফিকুল ও গোলজার হোসেনের সাথে দীর্ঘদিন যাবৎ বিরোধ চলে আসছিল। গতকাল সন্ধায় ইউপি সদস্য গোলজার হোসেন জেলা কারাগার থেকে জামিনে বেরিয়ে আসে। আসার পর আজকেই এই ঘটনা ঘটে। এই ঘটনায় এখন পর্যন্ত কাউকে আটক করা হয়নি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button