জাতীয়

প্রতারণার মাধ্যমে করোনা চিকিৎসার নামে ৩ কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে রিজেন্ট হাসপাতাল

শেয়ার করুনঃ

The Daily Narsingdir Baniবাণী ডেস্ক : করোনা চিকিৎসার নামে প্রতারণার মাধ্যমে ৩ কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়েছে রাজধানী ঢাকার রিজেন্ট হাসপাতাল জানিয়েছে র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট সারোয়ার আলম।

তাছাড়া হাসপাতালটির বিরুদ্ধে করোনা নেগেটিভ ও পজেটিভ সার্টিফিকেট বিক্রির অভিযোগ প্রমাণিত হয়েছে। টেস্ট না করেই দেয়া হতো করোনা টেস্টের রিপোর্ট।

করোনা চিকিৎসায় অনিয়মের অভিযোগে সোমবার (৬জুলাই) বিকেলে রিজেন্ট হাসপাতালের মিরপুর ও উত্তরা শাখায় একযোগে অভিযান চালান র‌্যাব এর ভ্রাম্যমান আদালত। অভিযান শেষে র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এ তথ্য জানান।

‌র‌্যাবের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট  বলেন, এখানে টেস্ট না করেই করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট দেয়া হতো। স্যাম্পল নিয়ে তা ফেলে দিয়ে ভুয়া রিপোর্ট দিতো হাসপাতালের সংশ্লিষ্টরা। রিপোর্টে নকল সিল ও স্বাক্ষর দেয়া হতো। এ ঘটনা আটজনকে আটক করা হয়েছে। এছাড়াও প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যানসহ যারা এ কর্মকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত সবার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।

সরোয়ার আলম বলেন, হাসপাতালটিতে বিনা পয়সায় কোভিড-১৯ টেস্ট করানোর কথা থাকলেও প্রতিটি রোগী কাছ থেকে ৩ হাজার ৫০০ টাকা করে নেয়া হতো। এছাড়া তারা নির্ধারিত রোগীর বাইরেও নমুনা সংগ্রহ করে তাদের থেকে অতিরিক্ত টাকা আদায় করতো। এখন পর্যন্ত তারা সরকারের কাছে প্রায় ১ কোটি টাকার মতো বিল জমা দিয়েছে।

অভিযানের সময় হাসপাতালের কোনো অনুমোদনই তারা দেখাতে পারেনি জানিয়ে তিনি আরো বলেন, এটা একটা ডায়াগনেষ্টিক ল্যাব ছিলো, যার মেয়ার ২০১৪ সালেই শেষ হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button