আইন-আদালত

আদালত খোলার সিদ্ধান্ত বাতিলে প্রধান বিচারপতিকে ৩০১ জন আইনজীবীর স্মারকলিপি

শেয়ার করুনঃ

The Daily Narsingdir Baniবাণী ডেস্কঃ বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে সীমিত আকারে আদালত খোলা রাখা অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ হবে। বিধায় আইনজীবীদের জীবন রক্ষায় স্বল্প পরিসরে আদালত খোলার সিদ্ধান্ত বাতিলের দাবিতে প্রধান বিচারপতিকে স্মারকলিপি দিয়েছে ৩০১ জন আইনজীবী পক্ষে সাধারণ আইনজীবীদের অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ।

সুপ্রিম কোর্টের ৩০১ জন আইনজীবীর সমন্বয়ে গঠিত সংগঠনটির ব্যানারে আজ রোববার সকাল ১১ ঘটিকার সময় প্রধান বিচারপতিকে স্মারকলিপি প্রদান করা হয়। সংগঠনের প্রধান সমন্বয়কারী এস এম জুলফিকার আলী জুনু সুপ্রিম কোর্টের ইমেইলের মাধ্যমে এবং কুরিয়ারে সাধারণ আইনজীবীদের পক্ষে এ স্মারকলিপি প্রদান করেন।

স্মারকলিপিতে বলা হয়েছে, করোনাভাইরাস সারাবিশ্বে মহামারি আকার ধারণ করেছে। বাংলাদেশে বর্তমানে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ৫ হাজার ছাড়িয়েছে এবং মৃতের সংখ্যা দেড় শ’র ঊর্ধ্বে। এমতাবস্থায় শুধুমাত্র মানুষের জীবন বাঁচানোর সাথে সম্পৃক্ত হাতেগোনা কয়েকটি প্রতিষ্ঠান ছাড়া অধিকাংশ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান, অফিস-আদালত বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। এ অবস্থায় আদালত খোলা থাকলে আদালতের সাথে সংশ্লিষ্টরা এবং আইনজীবী বিচারপ্রার্থীরা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হবার সম্ভাবনা রয়েছে।

তাই আদালত সংশ্লিষ্ট সকল স্তরের কর্মকর্তা-কর্মচারী, আইনজীবী, আইনজীবীর সহকারী, মোয়াক্কেল, নিরাপত্তা কর্মীদের জীবন বাঁচাতে বার কাউন্সিল, সুপ্রিম কোর্টের সিনিয়র আইনজীবীদের সাথে পরামর্শ ও আলোচনা করে সকলের মতামত নিয়ে কোর্ট বন্ধ রাখার অনুরোধ জানাচ্ছি।

উল্লেখ্য, গত ২৩ এপ্রিল করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সুপ্রিম কোর্টসহ সকল অধঃস্তন আদালতে ৫ মে পর্যন্ত সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হয়। এসময়ে সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে চেম্বার কোর্ট ও হাইকোর্ট বিভাগে একটি বেঞ্চ খোলা রেখে অতীব জরুরি বিষয়গুলো নিষ্পত্তিতে সিদ্ধান্ত নেন সুপ্রিম কোর্ট প্রশাসন।

এরপর গত ২৫ এপ্রিল অপর এক বিজ্ঞপ্তিতে সীমিত আকারে কোড খোলা রাখার সিদ্ধান্ত ২৭ এপ্রিল পর্যন্ত স্থগিত করেন সুপ্রিম কোর্ট।

আর বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে এখনই আদালত খোলা না রাখার অনুরোধ জানিয়েছেন প্রবীণ আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেনসহ বেশ কয়েকজন সিনিয়র আইনজীবী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button